RSS

Category Archives: আটা ময়দা

স্পেশাল লুচি

উপকরণ : ময়দা ২ কাপ, টক দই আধা কাপ, বেকিং পাউডার আধা চা চামচ, গুঁড়া দুধ ১ টেবিল চামচ, সুজি ২ টেবিল চামচ, ঘি আধা কাপ, তেল ১ কাপ, লবণ পরিমাণমতো, কালোজিরা ১ চা চামচ, আস্ত জিরা আধা চা চামচ, চিনি ১ চা চামচ, হালকা গরম পানি পরিমাণমতো।

প্রস্তুত প্রণালি : প্রথমে ময়দা, টক দই, বেকিং পাউডার, গুঁড়া দুধ, সুজি, লবণ, কালোজিরা ও আস্ত জিরা, চিনি দিয়ে ভালো করে মাখিয়ে এরপর গরম পানি দিয়ে ময়দা ভালো করে মাখাতে হবে, যাতে ডো নরম হয়। এরপর এটিকে ১৫-২০ মিনিট ঢেকে রাখতে হবে। ২০ মিনিট পর ময়দার লেচি কেটে গোল করে বেলে নিতে হবে। এখন অন্য একটি কড়াইতে তেল গরম হয়ে এলে লুচিগুলো ডুবো তেলে ভাজলেই তৈরি হয়ে যাবে। যে কোনো সবজি বা মিষ্টি দিয়ে পরিবেশন করুন এই স্পেশাল লুচি।

স্পেশাল লুচিরেসিপিটি প্রকাশিত হয় ১৪ অক্টোবর ২০১৫
1SAMAKAL=LOGO

Advertisements
 
 

চকলেট পিন হুইল ব্রেড

উপকরণ : ময়দা আড়াই কাপ, ইস্ট ৩ চা-চামচ, কোকো পাউডার ৩ টেবিল চামচ, ডিম ২টা, তরল দুধ সিকি কাপ (হালকা গরম), তেল ৩ টেবিল চামচ, কুকিং চকলেট সিকি কাপ (গলানো), চিনি ৩ টেবিল চামচ, পানি পরিমাণমতো, লবণ স্বাদমতো ও ভ্যানিলা ফ্লেভার ১ চা-চামচ।

প্রণালি : সিকি কাপ কুসুম গরম পানিতে সামান্য চিনি ও ইস্ট মিশিয়ে ১০ মিনিট রেখে দিন। এবার আরেকটি পাত্রে ডিম ফেটিয়ে এর সঙ্গে দুধ, তেল, লবণ, ভ্যানিলা ফ্লেভার ও বাকি চিনি মিশিয়ে মিশ্রণটি সমান দুই ভাগ করে রাখুন। এবার এক ভাগের সঙ্গে কুকিং চকলেট মিশিয়ে নিন। অন্যদিকে ময়দাটুকু ১ কাপ ও দেড় কাপ এভাবে মেপে দুটি আলাদা পাত্রে নিন। ১ কাপের সঙ্গে কোকো পাউডার মিশান। ভেজানো ইস্ট ফুলে উঠলে তা অর্ধেক করে নিন। দুধের দুটি মিশ্রণে একটিতে ময়দা ও আরেকটিতে কোকো মিশ্রিত ময়দা মিশিয়ে দুটি ভিন্ন নরম খামির তৈরি করুন। কুকিং চকলেট দেওয়া দুধের সঙ্গে কোকো পাউডারের মিশ্রণ দেবেন। ইস্ট দিয়ে দিন দুটি মিশ্রণেই। প্রয়োজনে কিছু অতিরিক্ত পানি অথবা ময়দা ব্যবহার করতে পারেন। এবার এই দুটি খামির আলাদা পাত্রে নিয়ে ওপরে তেল মাখিয়ে গরম জায়গায় রেখে দিন। ১ ঘণ্টা পর খামির ফুলে উঠলে ভালোমতো ময়ান দিয়ে আলাদাভাবে আপনার প্যানের মাপ অনুযায়ী দুটি চারকোনা রুটি বেলে নিন। এবার সাদাটির ওপর চকলেট রুটিটি রেখে এক পাশ থেকে মুড়িয়ে পুরোটা রুটি রোল করে নিন। এবার আগে থেকে তেল বা বাটার ব্রাশ করা একটি লোফ প্যানে রেখে আবার ৩০ মিনিট ফুলতে দিন। ৩০ মিনিট পর ওভেনে ১৭০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপে ৪০ মিনিট বেক করুন। নামিয়ে কেটে পরিবেশন করুন। এটি মাখন, জ্যাম বা এ ধরনের যেকোনো স্প্রেড ব্যবহার করে সকালে নাশতায় খেতে পারেন।

চকলেট পিন হুইল ব্রেডরেসিপিটি প্রকাশিত হয় ১৩ অক্টোবর ২০১৫
PALO

 
মন্তব্য দিন

Posted by চালু করুন অক্টোবর 13, 2015 in আটা ময়দা, বেকিং

 

মেথি পরোটা

উপকরণ : ময়দা ২ কাপ, চিনি ১ চা চামচ, তেল ১ টেবিল চামচ, লবণ পরিমাণমতো, ঘি ১ চা চামচ, বেকিং আধা চা চামচ, তেল ও ঘি মিশিয়ে ভাজার জন্য, পানি পরিমাণমতো, মেথি ১ টেবিল চামচ, ধনিয়া পাতা কুচি ইচ্ছামত

প্রস্তুত প্রণালি : ময়দা একটি পাত্রে নিতে হবে। মেথি ৪/৫ ঘণ্টা পানিতে ভিজিয়ে রাখতে হবে। একটি ছাঁকনিতে পানি ঝরিয়ে পাটায় মিহি করে বেটে নিতে হবে। তারপর ময়দার মধ্যে লবণ, চিনি, তেল, ঘি, মেথি, ধনিয়া পাতা ও পানি দিয়ে ভালো করে মেখে ঢাকনা দিয়ে ঢেকে রাখতে হবে ২/৩ ঘণ্টা। আবার গোলা ময়দা ভালো করে মেখে তারপর পিঁড়ির ওপর ময়দা ছিটিয়ে গোল করে আধা ইঞ্চির মতো রুটি বেলে ফ্রাইপ্যানে ঘি মেশানো তেল দিয়ে ভালোভাবে ভেজে নিতে হবে।

মেথি পরোটারেসিপিটি প্রকাশিত হয় ১৬ সেপ্টেম্বর ২০১৪
samoyiki-new

 
মন্তব্য দিন

Posted by চালু করুন নভেম্বর 20, 2014 in আটা ময়দা, পরোটা

 

মুচমুচে ঝরকা

উপকরণ : ময়দা ২ কাপ, লবণ সিকি চা-চামচ, তেল ২ টেবিল চামচ ও ভাজার জন্য। পানি আধা কাপ, রোস্ট করা সাদা তিল ২ টেবিল চামচ।

শিরার জন্য : চিনি ২ কাপ, পানি ১ কাপ, গোলাপজল ২ চা-চামচ, জাফরান সিকি চা-চামচ (গোলাপজলে ভিজিয়ে রাখুন)।

প্রণালি : চিনির সঙ্গে পানি মিশিয়ে জ্বাল দিয়ে ঘন শিরা তৈরি করুন। ছেঁকে নিয়ে গোলাপজলে মেশানো জাফরান দিয়ে নেড়ে রাখুন। ময়দার সঙ্গে লবণ মিশিয়ে তেলের ময়ান দিন। পানি মিশিয়ে ময়দা ভালো করে মেখে নিন। ২৪টি ভাগ করুন। প্রতিটি ভাগ হাতের তালুতে নিয়ে গোল ও মসৃণ করে চ্যাপ্টা করে রাখুন। ঘণ্টা খানেক ঢেকে রেখে দিন। রুটি বেলার পিঁড়িতে বা টেবিলে লুচির মতো বেলুন। চারপাশ থেকে ১ সেন্টিমিটার ছেড়ে ছুরি দিয়ে ৫-৬টি লম্বা দাগ কাটুন। এবার সাবধানে হালকাভাবে একধার থেকে সামান্য ভাঁজ করে মাঝখানে এনে একইভাবে অপর প্রান্ত থেকে সামান্য ভাঁজ করে মাঝখানে আরেকটি অংশ আনুন। দুটি অংশ হাত দিয়ে চেপে দিন। বেলুনির হাতলের মতো দুটি হাতল হবে। দেখতে অনেকটা চকলেটের মতো লাগবে। কড়াইয়ে তেল গরম করে ঝরকার হাতল ধরে গরম ডুবো তেলে ছাড়ুন। আঁচ কমিয়ে সোনালি রং করে ভেজে তেল ছেঁকে উঠিয়ে সরাসরি িশরায় ছাড়ুন। মিনিট খানেক শিরায় ডুবিয়ে রেখে প্লেটে সাজিয়ে ওপর থেকে সাদা তিল ছিটিয়ে দিন। ডায়বেটিসের রোগীরা শিরায় না চুবিয়ে কেবল ভাজাটা খাবেন। খেয়ে স্বাদ পাবেন।

মুচমুচে ঝরকারেসিপিটি প্রকাশিত হয় ৮ জুলাই ২০১৪
PALO

 

মিষ্টি বাকরখানি

উপকরণ : ময়দা ৪ কাপ, চিনি ১ কাপ, ঘি ২-৩ টেবিল চামচ, পানি ১ কাপ, লবণ ১ চা-চামচ, চিনি গুঁড়া আধা কাপ, গুঁড়া দুধ ৩ টেবিল চামচ, পানি পরিমাণমতো, মাখন আধা কাপ।

প্রণালি : একটি বাটিতে ময়দা, তেল, চিনি, গুঁড়া দুধ নিয়ে পানি দিয়ে ভালোভাবে মেখে নিতে হবে। সামান্য ঘি মেখে ১ ঘণ্টা ঢেকে রাখতে হবে। রুটি বেলে গলানো মাখন লাগিয়ে চার ভাঁজ করে ১৫-২০ মিনিট রেখে দিতে হবে। এরপর চার কোনা একসঙ্গে করে গোলভাবে আবার রুটি বেলতে হবে। প্রি-হিট ওভেনে ২০০ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপে ৮ মিনিট বেক করে নিতে হবে অথবা ননস্টিক প্যানে সামান্য মাখনে ভেজে নিতে হবে। চিনি ও পানি জ্বাল দিয়ে সিরা তৈরি করে নিতে হবে। ভাজা বাকরখানি সিরায় দিয়ে তুলে নিতে হবে। গরম গরম মাংসের সঙ্গে পরিবেশন করতে হবে।

মিষ্টি বাকরখানিরেসিপিটি প্রকাশিত হয় ৮ অক্টোবর ২০১৩
PALO

 
মন্তব্য দিন

Posted by চালু করুন অক্টোবর 8, 2013 in আটা ময়দা, ঈদের রান্না

 

মচমচে মুরালি

উপকরণ : ময়দা ২৫০ গ্রাম। মসুরের ডাল মিহি করে বাটা ১০০ গ্রাম। লবণ সামান্য, চিনি ও পানি পরিমাণমতো এবং ভাজার জন্য তেল।

প্রস্তুত প্রণালি : একটি পাত্রে ময়দা, লবণ এবং পরিমাণমতো তেল দিন। এতে বাটা মসুর ডাল দিয়ে আবার ভালো করে মাখিয়ে একটি শক্ত ডো তৈরি করুন। পরিমাণমতো পানি ও চিনি দিয়ে সিরা তৈরি করুন। এ থেকে পরিমাণমতো ডো নিয়ে রুটির মতো বেলে লম্বা লম্বা করে কেটে নিন। এরপর ডুবো তেলে মচমচে করে ভেজে তুলুন। গরম থাকতেই ভাজা মুরালিগুলো সিরায় দিয়ে কিছুক্ষণ নেড়ে নামিয়ে ঠাণ্ডা করে পরিবেশন করুন।

মচমচে মুরালি

রেসিপিটি প্রকাশিত হয় ১০ এপ্রিল ২০১৩
1SAMAKAL=LOGO

 

নানরুটি

উপকরণ: ময়দা দুই কাপ, ইস্ট ১ টেবিল-চামচ, চিনি ১ চা-চামচ, লবণ আধা চা-চামচ, ঘি ১ চা-চামচ, গুঁড়া দুধ ১ টেবিল-চামচ, পানি পরিমাণমতো, ডিম ১টা, পাকা কলা ১টা, লেবুর রস ১ চা-চামচ, চিনি আধা চামচ, খাওয়ার সোডা পরিমাণমতো।

প্রণালি: বাটিতে কলা, লেবুর রস, চিনি মিশিয়ে ভালোমতো চটকে নিন। এবার অন্য একটি পাত্রে ময়দা, ইস্ট, চিনি, লবণ, গুঁড়া দুধ ও পানি দিয়ে মাখান। তারপর সব উপকরণ আবার একসঙ্গে মেখে সামান্য পরিমাণ গরম পানি দিয়ে মথে একটি পাত্রে ঢেকে রেখে দিন। হয়ে গেল নানরুটির খামির। এবার ইচ্ছেমতো খামির গোলা করে সেই গোলা পরোটার মতো করে বেলে নিয়ে ২০ থেকে ৩০ মিনিট পর্যন্ত একটি পাত্রে ঢেকে রেখে দিন। তারপর রুটির মতো করে ভাজুন। ভাজা শেষ হলে ওপরে ঘি মেখে পরিবেশন।

রেসিপিটি প্রকাশিত হয় ২৩ অক্টোবর ২০১২

 
মন্তব্য দিন

Posted by চালু করুন অক্টোবর 26, 2012 in আটা ময়দা

 
 
%d bloggers like this: